দেশের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় সিলেটের গোলাপগঞ্জে

53

বিলেতবাংলা ডেস্ক, ২১ অক্টোবর: নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর স্থায়ী ক্যাম্পাস নির্মাণ কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। গতকাল বিকেলে গোলাপগঞ্জ উপজেলার হেতিমগঞ্জ মোল্লাগ্রামে এ ভিত্তি প্রস্তরটি স্থাপন করা হয়। নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর বোর্ড অব ট্রাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরীর সভাপতিত্ব করেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্ত্যব রাখেন নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর উপচার্য প্রফেসর ড. আতফুল হাই শিবলী।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, আমি এ এলাকার সন্তান ও এলাকার একজন কর্মী। এই এলাকাবাসীর সহযোগীতায় আমি কয়েকবার এমপি এরপর মন্ত্রী হই। সিলেটের নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটির উপর আমার অনেক আস্থা রয়েছে। সেই আস্থা থেকেই আমি দেশের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস সিলেটের গোলাপগঞ্জে স্থাপন করার জন্য অনুমোদন দিয়েছি। আমি আমার এলাকা সিলেটের গোলাপগঞ্জে বাংলাদেশের প্রথম বিশ্ববিদ্যালয় অনুমোদন দিতে পেরে গর্বিত। এজন্য প্রধানমন্ত্রী আমাকে বলেছেন, দেশের কোথাও কোন উপজেলায় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুমোদন না দিয়ে আপনি সিলেটে অনুমোদন দিয়েছেন, আপনি কি সফল হবেন? আজ আমি প্রধানমন্ত্রীকে গর্বের সাথে বলতে পারি নেত্রী আমি সফল হয়েছি। ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন অনুষ্টানে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ আরো বলেন, অনেকেই মনে করেন বিশ্ববিদ্যালয় বিনোয়গ করলেই মুনাফা পাওয়া যায়। আসলে এ কথা সত্য নয়। শিক্ষায় কোন মুনফা অর্জন করা যাবেনা। যে জ্ঞান বাস্তবে প্রয়োগ করা যায় না সেজ্ঞান সম্পূর্ণ অর্থহীন। বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষা ক্ষেত্রে আমাদের দৃষ্টি ভঙ্গি বদলাতে হবে। বিশ্ববিদ্যালয় হবে জ্ঞান চর্চা কেন্দ্র, অনুসন্ধান আর গবেষণার কেন্দ্র বিন্দু। আমাদেরকে দারিদ্র, দুর্নীতি পেছনে ফেলে উন্নত বাংলাদেশ গড়ার জন্য যথার্থ জ্ঞান অর্জন করতে হবে। আমাদেরকে লক্ষ্য রাখতে হবে দেশকে এগিয়ে নেয়ার পাশাপাশি নতুন প্রজন্মকে এগিয়ে নেওয়া। এছাড়াও তিনি বলেন, পড়াশুনার মান বৃদ্ধি করার জন্য আমি ঢাকা শহর থেকে ২৭টি বিশ্ববিদ্যালয় ঢাকার বাহিরে নিয়ে যাই। যাতে গ্রামগুলোও শিক্ষায় আলোকিত হয়।

সভাপতির বক্তব্যে নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর বোর্ড অব ট্রাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরী বলেন, ২০১২ সালের ৯জুন শিক্ষামন্ত্রীর হাত ধরেই এ বিশ্ববিদ্যালয়ের যাত্রা শুরু হয়। ইতোমধ্যে এ বিশ্ববিদ্যালয়টি সিলেটে ব্যাপক সফলতা অর্জন করেছে। আমার স্ত্রীর (মরহুম) জায়গার উপর নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের স্থায়ী ক্যাম্পাস নির্মাণ কাজ শুরু করতে যাচ্ছি। আমার স্ত্রী জায়গাটি বিক্রি না করার শর্তে এ জায়গাটির উপর বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস স্থাপনের অনুমতি দেন। আজ এ বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন ক্যাম্পাসে বীজ শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের হাতে বপণ হয়েছে বলে সত্যিই আমি গর্বিত।

ভিত্তি প্রস্তুর স্থাপন অনুষ্টানে বক্তব্য রাখেন- সিলেট বিভাগীয় কমিশনার জামাল উদ্দিন আহমেদ, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর আমিনুল হক ভুঁইয়া, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর গোলাম শাহী আলম, সিলেট উইমেন্স মেডিকেল কলেজের চেয়ারম্যান ওয়ালি তছর উদ্দিন, গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র সিরাজুল জব্বার চৌধুরী, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী। সভা শেষে উপস্থিত সবাইকে কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন নর্থ ইস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর ট্রেজারার এ এফ মুজতাহিদ। অনুষ্টানটি সঞ্চলনা করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রভাষক ফাতেমা রশিদ সাবা।