প্রধান শিক্ষককে কান ধরে ওঠ-বস

48

বিলেতবাংলা ডেস্ক, ১৫ মে: নারায়ণগঞ্জে একটি স্কুলের প্রধান শিক্ষককে স্থানীয় সংসদ সদস্যের (এমপি) উপস্থিতিতে কান ধরে ওঠ-বস করিয়ে সাজা দেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

পিয়ার সাত্তার লতিফ হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে এর আগে উত্তেজিত একদল লোক মারধরও করে।

ক্ষুব্ধ জনতার হাত থেকে বাঁচাতে পুলিশ ওই শিক্ষককে নিরাপত্তা হেফাজতে নিতে বাধ্য হয় বলে জানিয়েছেন বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম।

বিবিসি বাংলাকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে শ্যামল কান্তি অভিযোগ করেন, ধর্ম নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করেছেন এমন অপবাদ দিয়ে তার বিরুদ্ধে স্থানীয় লোকজনকে ক্ষেপিয়ে তোলা হয়েছিল।

তিনি বলেন, তিনি স্কুলের এক ছাত্রকে সাজা দিতে গিয়ে মারধর করেছিলেন। সেই ঘটনাটিকেও তার বিরুদ্ধে ব্যবহার করা হয়। বলা হয়, এই ছাত্রকে মারার সময় তিনি ধর্ম সম্পর্কে কটূ কথা বলেছেন।

এরকম কোনো মন্তব্য করার কথা অস্বীকার করে শ্যামল কান্তি বলেন, স্কুলের পরিচালনা নিয়ে বিরোধের জের ধরে যারা তার ওপর ক্ষুব্ধ ছিল, তারা পুরো ঘটনার পেছনে আছে।

স্থানীয় এমপি সেলিম ওসমান বিষয়টি স্বীকার করে বলেন, জনরোষ থেকে ওই শিক্ষককে বাঁচাতে এ ছাড়া আর কোনো উপায় ছিল না।