পেঁয়াজের কেজি ৫০ পয়সা

91

বিলেতবাংলা ডেস্ক, ১৩ মে: মাত্র ১৭৫ টাকায় ৪৫০ কেজি পেঁয়াজ বিক্রিরে শোক এখনও ভুলতে পারছেন না ভারতের মহারাষ্ট্র রাজ্যের আওরঙ্গবাদ জেলার কৃষক ঔরঙ্গাবাদের রবীন্দ্র মাধিকর। পার্শ্ববর্তী লসুর বাজারে ৫০ পয়সা কেজি দরে পেঁয়াজ বিক্রির পর এই কৃষকের আক্ষেপ, ‘কৃষকরা কেন নিজেদের জীবন শেষ করার জন্য মারাত্মক সব সিদ্ধান্ত নেয় সেটা ভেবে আমি অবাক হয়ে যেতাম। তবে ১ ১  মে বুধবারের পর আমারও মনে হচ্ছে আত্মহত্যা করলাম।’

টাইমস অব ইন্ডিয়ায় জানিয়েছে, মারাঠওয়াড়ার অন্যতম বড় পেঁয়াজের পাইকারী বাজার লাসুরে ৫০ পয়সা কেজি দরে পেঁয়াজ বিক্রি করছেন কৃষকরা। পেঁয়াজের উত্‍‌পাদন বেড়ে যাওয়ায় দেশের সবচেয়ে বড় পেঁয়াজের পাইকারী বাজার নাসিকেও একদিনে কুইন্টাল প্রতি পেঁয়াজের দাম ৭৫০ টাকা থেকে কমে হয়েছে ৭২০ টাকা।

পৈঠানের বাসিন্দা প্রহ্লাদ গলধর বলেন, বেশিরভাগ কৃষকেরই অতিরিক্ত উত্‍‌পাদন স্টকে রেখে দেওয়ার ক্ষমতা নেই। খরার কারণে অনেক আঁখের কৃষক আবার আঁখ ছেড়ে পেঁয়াজ ফলিয়েছেন।

কৃষক নেতা জয়াজি সূর্যবংশীর বলেন, ‘সরকারের উচিত ন্যাশনাল এগ্রিকালচারাল কো-অপারেটিভ মার্কেটিং ফেডারেশন অব ইন্ডিয়া লিমিটেডের মাধ্যমে কৃষকদের থেকে পেঁয়াজ কিনে নেওয়া।’

ঔরঙ্গাবাদের সরকার নিযুক্ত এগ্রিকালচারাল প্রোডিউস মার্কেট কমিটির এক্সপার্ট ডিরেক্টর হরিশ পাওয়ার বলেন, ‘চাহিদা ও জোগানের বিপুল হেরফের হওয়াতেই পেঁয়াজের দাম এতো কমে গিয়েছে’।

বিজেপি-র আঞ্চলিক মুখপাত্র শিরীষ বোরালকর জানান, কৃষকদের সাহায্যের জন্য তাদের কাছ থেকে ১৫ হাজার টন পেঁয়াজ কিনবে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র।